Sunday, October 10 2021

ইলিশের উৎপাদন বাড়াতে নেওয়া হবে ১৩৪ জন

১৩৪ জনকে মোট ১৩৪টি উপজেলায় নিয়োগ দেওয়া হবে। ইলিশের উৎপাদন বাড়ানোর লক্ষ্যে মাঠপর্যায়ে মা ইলিশ ও জাটকা সংরক্ষণ আইন বাস্তবায়নসহ বিভিন্ন কাজ করবেন তাঁরা।

আব্দুর রাজ্জাক সরকার

প্রকাশ: ০৮ অক্টোবর ২০২১, ১৩: ৩৭

অ+অ-

মা ইলিশ ও জাটকা সংরক্ষণে মৎস্য সংরক্ষণ আইন বাস্তবায়ন এবং অভয়াশ্রম ব্যবস্থাপনার মাধ্যমে ইলিশের উৎপাদন বৃদ্ধির জন্য জনবল নিচ্ছে মৎস্য অধিদপ্তর। মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের আওতায় মৎস্য অধিদপ্তরের বাস্তবায়নাধীন ‘ইলিশ সম্পদ উন্নয়ন ও ব্যবস্থাপনা প্রকল্প’–এর অধীনে জনবল নিয়োগের জন্য পত্রিকায় বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছে। ‘ক্ষেত্র সহকারী’ নামের পদটিতে মোট ১৩৪ জনকে নিয়োগের জন্য বিজ্ঞপ্তি দিয়েছে মৎস্য অধিদপ্তর। এ ছাড়া এ প্রকল্পের অধীনে অতিরিক্ত জেলা সহকারী মৎস্য কর্মকর্তা পদে নিয়োগের জন্য অক্টোবর মাসে আরেকটি বিজ্ঞপ্তি দেওয়া হবে।

ইলিশ সম্পদ উন্নয়ন ও ব্যবস্থাপনা প্রকল্পের পরিচালক মো. জিয়া হায়দার চৌধুরী প্রথম আলোকে বলেন, ‘ক্ষেত্র সহকারী’ পদে নিয়োগপ্রক্রিয়া শেষে নির্বাচিত প্রার্থীদের চাঁদপুর, বরিশাল, পটুয়াখালী, লক্ষ্মীপুর, ভোলা, বরগুনা, কক্সবাজারসহ যেসব জেলায় ইলিশের আনাগোনা বেশি, সেসব জেলায় তাঁদের পদায়ন দেওয়া হবে।

মো. জিয়া হায়দার চৌধুরী বলেন, ১৩৪ জনকে মোট ১৩৪টি উপজেলায় নিয়োগ দেওয়া হবে। ইলিশের উৎপাদন বাড়ানোর লক্ষ্যে মাঠপর্যায়ে মা ইলিশ ও জাটকা সংরক্ষণ আইন বাস্তবায়নসহ বিভিন্ন কাজ করবেন তাঁরা। মূলত তাঁরা ইলিশ সম্পদ উন্নয়নে কাজ করবেন। এ ছাড়া উপজেলা মৎস্য দপ্তরের অধীনে অন্যান্য কাজও করবেন।

বিজ্ঞপ্তি অনুযায়ী সব জেলার প্রার্থীরা ক্ষেত্র সহকারী পদে আবেদন করতে পারবেন। এ পদের জন্য আবেদনকারীকে কমপক্ষে বিজ্ঞান বিভাগ থেকে এইচএসসি পাস হতে হবে। যেকোনো স্বীকৃতিপ্রাপ্ত মৎস্য ডিপ্লোমা ইনস্টিটিউট থেকে ৪ বছরের মৎস্য কোর্সে উত্তীর্ণ প্রার্থীরা অগ্রাধিকার পাবেন। ২৫ মার্চ ২০২০ তারিখে প্রার্থীর বয়স ১৮-৩০ বছরের মধ্যে হতে হবে। তবে মুক্তিযোদ্ধা কোটাধারী ও প্রতিবন্ধীদের ক্ষেত্রে বয়স সর্বোচ্চ ৩২ বছর। বয়স প্রমাণের ক্ষেত্রে অ্যাফিডেভিট গ্রহণযোগ্য নয়।

আবেদন ফরম ও প্রবেশপত্রের নমুনা মৎস্য অধিদপ্তরের ওয়েবসাইটে (http://fisheries.gov.bd/) পাওয়া যাবে। আবেদন ফরমের সঙ্গে দুই কপি প্রবেশপত্র যুক্ত করতে হবে। আবেদনপত্রে ৫x৫ সে.মি সাইজের এক কপি এবং দুটি প্রবেশপত্রে দুই কপি সত্যায়িত রঙিন ছবি দিতে হবে। খামের ওপরে স্পষ্ট অক্ষরে পদের নাম ও নিজ জেলা উল্লেখ করতে হবে এবং মুক্তিযোদ্ধা ও ক্ষুদ্র জাতিসত্তার প্রার্থীর ক্ষেত্রে খামের ওপর মুক্তিযোদ্ধা/ক্ষুদ্র জাতিসত্তা লিখতে হবে।

আবেদনকারীকে প্রকল্প পরিচালক, ইলিশ সম্পদ উন্নয়ন ও ব্যবস্থাপনা প্রকল্প, মৎস্য অধিদপ্তর, মৎস্য ভবন, রমনা, ঢাকা-১০০০ বরাবর আবেদন করতে হবে। আবেদনপত্র আগামী ২৫ অক্টোবরের মধ্যে ইলিশ সম্পদ উন্নয়ন ও ব্যবস্থাপনা প্রকল্প, মৎস্য অধিদপ্তর, কক্ষ নম্বর ৫১১, মৎস্য ভবন, ১৩ শহীদ ক্যাপ্টেন মনসুর আলী সরণি, রমনা, ঢাকা-১০০০ বরাবর ঠিকানায় পাঠাতে হবে।

প্রকল্প মেয়াদকালে ২০২৪ সালের জুন মাস পর্যন্ত অস্থায়ী ভিত্তিতে ক্ষেত্র সহকারী পদে নিয়োগ দেওয়া হবে। এ পদে চূড়ান্তভাবে নিয়োগপ্রাপ্তরা জাতীয় বেতন স্কেল ২০১৫ অনুযায়ী গ্রেড-১৬ স্কেলে বেতন পাবেন।

প্রকল্প পরিচালক মো. জিয়া হায়দার চৌধুরী আরও বলেন, ইলিশের উৎপাদন বাড়ানোর লক্ষ্যে এই প্রকল্পের অধীনে অতিরিক্ত জেলা সহকারী মৎস্য কর্মকর্তা পদে ২৯ জনকে নিয়োগের জন্য অক্টোবর মাসে আরেকটি বিজ্ঞপ্তি দেওয়া হবে। নিয়োগপ্রক্রিয়া শেষে ২৯টি জেলায় তাঁদের পদায়ন দেওয়া হবে। তাঁরাও মাঠপর্যায়ে ইলিশ সম্পদ উন্নয়নে কাজ করবেন। তাঁদের ১০ম গ্রেডে নিয়োগ দেওয়া হবে।

আগামী ২৫ অক্টোবরের মধ্যে আবেদনপত্র পাঠাতে হবে।


RECENT NEWS

কৃষি গবেষণা কাউন্সিলে চাকরির সুযোগ

আবেদনের শেষ সময়: ৪ সেপ্টেম্বর ২০২২, বিকেল পাঁচটা পর্যন্ত

8 hours ago

সুপ্রিম কোর্টে চাকরির সুযোগ, আবেদন ফি ২২০

আবেদনের শেষ সময়: ৩১ আগস্ট ২০২২, বিকেল ৪টা পর্যন্ত

2 days ago